Close

ভারতের ৬ রাজ্যে নিষিদ্ধ ‘পদ্মাবত’

8বিজেপি পরিচালিত ৬টি রাজ্য সরকার ভারতের সর্বোচ্চ আদালতের নির্দেশ উপেক্ষা করার সাহস রাখে। সুপ্রিম কোর্টের রায়কে অমান্য করতে একবারো ভাবে না এসব রাজ্য। বিশ্বের সবচেয়ে বড় গণতান্ত্রিক দেশ ভারতে কোনোদিন সঞ্জয় লীলা বনশালীর পদ্মাবতী আর দিনের আলো দেখবে না। তবে পদ্মাবতী নাম পরিবর্তন করে হয়েছে পদ্মাবত। বেশ কিছু পরিবর্তনের পর গত ২৮ ডিসেম্বর সেন্সর বোর্ডের ছাড়পত্রও পেয়েছে পদ্মাবত। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী, সেন্সর বোর্ড ছাড়পত্র দিলেই ভারতে পদ্মাবত দেখাতে আর কোনো বাধা থাকবে না। কিন্তু কোথায় কি?

সেন্ট্রাল বোর্ড অব ফিল্ম সার্টিফিকেশন বা সেন্সর বোর্ডের ছাড়পত্র পেয়ে আগামী ২৫ জানুয়ারি ভারতে মুক্তি হচ্ছে পদ্মাবত। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশই ছিল যে সেন্সর বোর্ড ছাড়পত্র দিলে তবেই রিলিজ হবে ফিল্মটি। কিন্তু ভারতের মহামান্য সর্ব্বোচ্চ আদালতের রায়ও মানছে না ভারতের ৬টি রাজ্য। প্রথমে রাজস্থান, আর সব শেষে গত মঙ্গলবার হরিয়ানা রাজ্য সরকারও জানিয়ে দিল কোনোরকমেই পদ্মাবত রিলিজ করতে দেয়া হবে না সেখানে।

রাজস্থান, হরিয়ানার মতো গুজরাট, হিমাচল প্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ ও উত্তরাখণ্ডেও পদ্মাবত মুক্তির অনুমতি দেয়া হবে না বলেই জানিয়ে দিয়েছে রাজ্য সরকারগুলো। এসব অঞ্চল এখন বিজেপি শাসিত। ৬টি বিজেপি শাসিত রাজ্যেই বুড়ো আঙ্গুল দেখানো হচ্ছে ভারতের আদালতকে। কেন্দ্রেও এখন বিজেপি শাসন। মোদির রাজত্বে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশকেও চ্যালেঞ্জ করছে বিজেপি শাসিত ৬টি রাজ্য।

আদালতে প্রযোজকরা
ভারতের ছয়টি রাজ্য ঘোষণা দিয়েছে, তাদের রাজ্যে ‘পদ্মাবত’ মুক্তি পাবে না। এবার সেই ছয় রাজ্যের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আদালতের দ্বারস্থ হলেন ছবির প্রযোজকরা। টাইমস অব ইন্ডিয়া সূত্রে খবর, সঞ্জয় লীলা বনসালির বিতর্কিত ছবি ‘পদ্মাবত’-এর মুক্তি ভারতের ছয় রাজ্যে নিষিদ্ধের ঘোষণায় এবার শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হচ্ছেন ছবিটির প্রযোজকরা।

রাজ্যগুলোকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে যে আবেদন দাখিল করেছেন তারা, শীর্ষ আদালতের প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্রের নেতৃত্বাধীন এক বেঞ্চ গতকাল বৃহস্পতিবার সেই আবেদন শোনার জন্য অনুমতি দিয়েছে। সুপ্রিম কোর্টের আবেদনে প্রযোজকরা প্রশ্ন তুলেছেন, সেন্সর বোর্ডের নির্দেশ মেনেই যা যা করা প্রয়োজন তা সবই করা হয়েছে। তারপরও কেন ‘পদ্মাবত’ মুক্তিতে সমস্যা দেখা দিচ্ছে? শুটিং শুরুর দিন থেকেই বিভিন্ন কারণে বিতর্কের কেন্দ্রে সঞ্জয় লীলা বনসালির এই স্বপ্নের ছবি। দেশজুড়ে প্রতিবাদের মুখে পিছিয়ে যায় ছবি মুক্তির দিন। আগামী ২৫ জানুয়ারি ছবিটির মুক্তির দিন স্থির হয়েছে।

Share on Facebook
নিউজটি 227 বার পড়া হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ সংবাদ

16129961_1730814400566375_1235166755_o