Close

কক্সবাজারের ঘরের ভিতর একই পরিবারের ৪ জনের লাশ উদ্ধার

কক্সবাজার শহরে গোলদীঘির পাড় এলাকায় দুই মেয়ে ও স্ত্রীকে হত্যার পর হত্যাকারী নিজেই আত্মহত্যা করেছে এক হিন্দু ব্যবসায়ী। ঘটনার পরপরই খবর পেয়ে চার জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ঘটনাটি ঘটে। স্থানীয়দের ধারণা, ব্যবসায় লোকসানের কারণেই এ ঘটনা।

নিহতরা হলেন, শহরের গোলদীঘির পাড় এলাকার মৃত ননী গোপাল চেীধুরীর ছেলে সুমন চৌধুরী (৩০), তার স্ত্রী বেবী চৌধুরী (২৫), মেয়ে অবন্তিকা চৌধুরী (৫) ও জ্যোতি চৌধুরী (৩)। পুলিশের ধারণা, পারিবারিক কলহের জেরে ঘটনাটি ঘটেছে।

স্থানীয়দের ধারণা, ব্যবসায় লোকাসান ও আর্থিক অভাব-অনটন এবং পাওনাধারদের দেনা শোধ করতে না পারায় সুমন চৌধুরী বেশ কিছুদিন ধরে মানসিক সমস্যায় ভুগছিলেন। দূ:চিন্তা থেকে তিনি আত্মহত্যার পথ বেঁচে নেন।

স্থানীয় পৌর কাউন্সিলর রাজ বিহারী জানান, তারা সবাই দুপুরে খাবার শেষে ঘুমিয়ে পড়েন। কিন্তু সন্ধ্যা পর্যন্ত কারো সাড়া-শব্দ না পেয়ে পাশ্ববর্তী লোকজন ঘরের দরজা ভেঙ্গে ৪ জনের মরদেহ দেখতে পান। পরে পুলিশকে খবর দিলে কক্সবাজার সদর থানার ওসি রনজিত বড়ুয়ার নেতৃত্বে পুলিশ ঘটনা স্থলে গিয়ে মরদেহগুলো উদ্ধার করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ওসি রঞ্জিত বড়ুয়া জানান, দুই মেয়ে ও স্ত্রীকে হত্যার পর হত্যাকারী নিজেই আত্মহত্যা করেছে। স্থানীয়দের কাছে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল তাদের বাড়িতে বিছানায় শোয়া অবস্থায় মা ও দুই মেয়ে এবং ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় গৃহকর্তা সুমন চৌধুরীর মরহে উদ্ধার করা করে।

Share on Facebook
নিউজটি 131 বার পড়া হয়েছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ সংবাদ

16129961_1730814400566375_1235166755_o